ঈদের ছুটি শেষে রাজধানীতে ফিরছে মানুষসৌদি আরবে ৫৫০ হজযাত্রীর মৃত্যুআজ থেকে নতুন সূচিতে অফিসশিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে গ্রীষ্মের ছুটি এক সপ্তাহ কমতে পারেযে সব অঞ্চলে ৬০ কিমি বেগে ঝড় হতে পারে
No icon

রাফাসহ গাজায় ইসরায়েলের তুমুল হামলা

আন্তর্জাতিক বিচারালয়ের (আইসিজে) নির্দেশ উপেক্ষা করে রাফা শহরসহ গাজায় তুমুল হামলা চালাচ্ছে ইসরায়েলি বাহিনী। গতকাল শনিবার ইসরায়েলি বিমান ও কামানগুলো রাফায় ব্যাপক বোমা ও গোলাবর্ষণ করে। রাফায় অবিলম্বে সামরিক অভিযান বন্ধ করতে গত শুক্রবার আইসিজে যখন নির্দেশ দিয়েছিল, তখনো শহরটির পূর্ব ও কেন্দ্রস্থলে ব্যাপক হামলা চালাচ্ছিল ইসরায়েল। ইসরায়েলি সামরিক বাহিনী জানায়, শহরের একটি এলাকায় তারা অন্তত ৯টি বোমা ছুড়েছে।শহরের পশ্চিম অংশে এবং এর আশপাশেও ইসরায়েলি বাহিনীর আগ্রাসনের পরিধি বেড়েছে। ওই এলাকায় শাবোরা শরণার্থীশিবির এবং কুয়েতি হাসপাতাল রয়েছে। গত কয়েক মাসে শরণার্থীশিবিরটিতে বোমা হামলায় সেখানে বেশ কয়েকটি আবাসিক ভবন, রাস্তাঘাট, সরকারি স্থাপনা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। ইসরায়েলের ট্যাংক ও সেনারা রাফার দক্ষিণ-পূর্ব দিকে এবং শহরের ঘনবসতিপূর্ণ পশ্চিম এলাকায় এগিয়ে যাচ্ছে।নেদারল্যান্ডসের হেগে অবস্থিত আইসিজে গত শুক্রবার দক্ষিণ গাজার জনাকীর্ণ শহর রাফায় সামরিক অভিযান বন্ধ করতে ইসরায়েলের প্রতি নির্দেশ দেন। জাতিসংঘের শীর্ষ আদালত মিসর ও গাজার সীমান্তে রাফা ক্রসিং দিয়ে প্রয়োজন অনুযায়ী পর্যাপ্ত পরিমাণে ত্রাণ প্রবেশের জন্য খুলে দেওয়ার নির্দেশ দেন ইসরায়েলকে। ইসরায়েলের বিরুদ্ধে দক্ষিণ আফ্রিকার মামলার পরিপ্রেক্ষিতে এই আদেশ দেন আইসিজে। আইসিজের রায়কে আপত্তিজনক, নৈতিকভাবে বিদ্বেষপূর্ণ, বিরক্তিকর বলে মন্তব্য করেছে ইসরায়েল।

একই সঙ্গে তারা গাজায় গণহত্যা চালানোর অভিযোগকে মিথ্যা বলে দাবি করেছে। এদিকে উত্তর গাজায় জাবালিয়া শরণার্থীশিবিরে ইসরায়েলি বাহিনীর অভিযান অব্যাহত রয়েছে। তারা সেখানে আরো আবাসিক ভবন, স্কুল, জাতিসংঘের স্থাপনা লক্ষ্যবস্তু করছে। জাবালিয়ায় শরণার্থীশিবিরে ইসরায়েলের এই অভিযান বহু মানুষকে বাস্তুচ্যুত করেছে। শরণার্থীশিবিরের মানুষ গাজা সিটির পশ্চিম দিকে সরে যেতে বাধ্য হচ্ছে।১৭ দিন ধরে শরণার্থীশিবিরটিতে খাবার, পানি মিলছে না। সেখানে পুরো দুর্ভিক্ষ চলছে। গাজার বাসিন্দারা জানায়, রাফা, দেইর আল বালাহ, গাজা সিটি, জাবালিয়া শরণার্থীশিবিরসহ উপত্যকার বিভিন্ন স্থানে হামলা চালিয়েছে ইসরায়েল। গাজা সিটি থেকে বাস্তুচ্যুত হয়ে দেইর আল বালাহয় আশ্রয় নিয়েছেন আল আশকা নামের এক নারী। তিনি জানান, গাজায় এখন আর কিছুই অবশিষ্ট নেই। তাঁরা আশা করছেন, আইসিজের রায় ইসরায়েলকে এই বিনাশের যুদ্ধ বন্ধে চাপ দিতে পারবে।কয়েক দিন আগেই আয়ারল্যান্ড, স্পেন, নরওয়ে জানিয়েছে, তারা ফিলিস্তিনকে রাষ্ট্র হিসেবে আনুষ্ঠানিকভাবে স্বীকৃতি দেবে। আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতের (আইসিসি) প্রধান কৌঁসুলি জানিয়েছেন, তিনি ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুর বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানার আবেদন করেছেন। এদিকে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের সঙ্গে এক ফোনালাপে মিসরের প্রেসিডেন্ট আবদেল ফাত্তাহ আল সিসি কারেম আবু সালেম সীমান্ত দিয়ে জাতিসংঘকে গাজায় ত্রাণ প্রবেশে অনুমতি দিতে সম্মত হয়েছেন। এদিকে রাফা ক্রসিং সীমান্তে আটকে থাকা ত্রাণ নষ্ট হয়ে যাচ্ছে।