ঈদের ছুটি শেষে রাজধানীতে ফিরছে মানুষসৌদি আরবে ৫৫০ হজযাত্রীর মৃত্যুআজ থেকে নতুন সূচিতে অফিসশিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে গ্রীষ্মের ছুটি এক সপ্তাহ কমতে পারেযে সব অঞ্চলে ৬০ কিমি বেগে ঝড় হতে পারে
No icon

বাংলাদেশের শেষ ম্যাচ আজ, সামনে অস্ট্রেলিয়া

মাঠের যে দিকটাতে পাথুরে পাহাড় দাঁড়িয়ে, ঠিক তার উল্টো পাশের আকাশেই জমেছে কালো মেঘ। যদিও পুনের আবহাওয়া রিপোর্ট বলছে, আজ দিনের শুরুতে এই মাঠে যখন বাংলাদেশ-অস্ট্রেলিয়া ম্যাচ চলবে, তখন বৃষ্টির কোনো পূর্বাভাস নেই। তেমনি অস্ট্রেলিয়া দলের রিপোর্ট বলছে, আজ এখানে ম্যাক্সওয়েল ঝড় আসারও কোনো পূর্বাভাস নেই!কারণ সেদিনের অতিমানবীয় ইনিংস খেলার পর ম্যাক্সওয়েল গতকাল পর্যন্ত নিজেকে ফিট বলতে পারেননি। কলকাতার সেমিফাইনালের জন্য নতুন করে নাকি নিজেকে তৈরি করে রাখছেন। বিশ্বকাপে অসিদের নবযাত্রার দিনে অবশ্য ক্লান্ত বাঁশির রাগিণী বাজছে বাংলাদেশ দলে। সাকিব নেই, বোলিং কোচ অ্যালান ডোনাল্ড ও দলের পারফরম্যান্স অ্যানালিস্ট শ্রীনিবাসনের পদত্যাগের ঘোষণা সব মিলিয়ে একটা শেষের শুরু বাংলাদেশ দলেও।আজকের ম্যাচে তাই প্রত্যাশার তেমন চাপ নেই। তবে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির টিকিট পাওয়ার জন্য বিশ্বকাপের তালিকায় আট নম্বরে থাকার একটা সূক্ষ্ম সমীকরণ মেলানোর চ্যালেঞ্জ রয়েছে। অস্ট্রেলিয়াকে হারাতে পারলে ৬ পয়েন্ট নিয়ে তালিকার আট নম্বরে থাকাটা নিশ্চিত হয়ে যাবে। তবে হারলেও সেই সুযোগ থাকবে, সেখানে আপাতত হিসাবটা এমন প্রথমে ব্যাটিং করে অস্ট্রেলিয়া যদি ৩৬০ রান করে, তাহলে বাংলাদেশকে অন্তত ২০০ রান করতে হবে। যদি বাংলাদেশ প্রথমে ব্যাটিং করে ২০০ রান তোলে, তাহলে অস্ট্রেলিয়াকে ওই রান তাড়া করার জন্য অন্তত ২৩ ওভার পর্যন্ত খেলা টেনে নিয়ে যেতে হবে।

হিসাবটা নিশ্চয়ই জানা চন্ডিকা হাথুরুসিংহের, যদিও মুখে তিনি স্বীকার করছেন না যে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির টিকিট নিশ্চিত করাই এখন এই বিশ্বকাপে বাংলাদেশ দলের মূল লক্ষ্য। এই মুহূর্তে আমি কোনো সমীকরণে যাচ্ছি না। আমরা অস্ট্রেলিয়ার সঙ্গে ম্যাচটি বিশ্বকাপের ম্যাচ হিসেবেই দেখছি। যেখানে তাদের হারাতে হলে আমাদের সেরা খেলাটা খেলতেই হবে। ২০০৫ সালে কার্ডিফে একবারই অস্ট্রেলিয়াকে ওয়ানডেতে হারিয়েছিল বাংলাদেশ, গেল ১৮ বছর অবশ্য সেভাবে কোনো দ্বিপক্ষীয় সিরিজ খেলা হয়নি। তা ছাড়া বর্তমান দলের শান্ত, তাওহিদদের অনেকেই এই অসি বোলিং কখনও মোকাবিলা করেননি। তাই অস্ট্রেলিয়া অনেকটাই অচেনা এই দলটির কাছে। তবে আফগানিস্তানের বিপক্ষে প্রথম ম্যাচে স্পিনাররা ভালো করেছিলেন, শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে যেমন শান্তরা রান পেয়েছিলেন দুটি ম্যাচের আত্মবিশ্বাস নিয়েই আজকের ম্যাচে মুখোমুখি হতে চাইছে দল। এ নিয়ে তিনটি ম্যাচ দিনের আলোতে খেলতে নামবেন মুশফিকরা।

বিশ্বকাপ শুরুর মতো শেষটাতেও একটা ভালোলাগা নিয়ে দেশে ফিরতে চাইছেন ক্রিকেটাররা। বিকেল বিকেল শেষ করে রাতেই ঢাকা ফেরার ফ্লাইট ধরার চেষ্টা করা হচ্ছে। টিকিট পাওয়া গেছে কিনা, রাত পর্যন্ত তা জানা যায়নি। অতীতে এমন হয়েছে, বিশ্বকাপের শেষদিকে এসে গা-ছেড়ে দেন ক্রিকেটাররা, একটা হ্যাং ওভার পেয়ে বসে তাদের। গত বিশ্বকাপে সে কারণে পাকিস্তানের বিপক্ষে শেষ ম্যাচটিতে বাজে হার মেনে নিতে হয়েছিল। কিন্তু এবার কিছুটা যেন ভিন্ন পরিবেশ ড্রেসিংরুমে।গতকাল ঐচ্ছিক অনুশীলনে এসে নেটে দারুণ সব শট খেলতে দেখা যায় মুশফিককে, লিটন আগের দিন না এলেও এদিন ঘণ্টা দেড়েক দারুণ ব্যাটিং করেন। মেহেদী হাসান মিরাজকে ছক্কা হাঁকাতে দেখা যায় বেশ কয়েকবার এবং এনামুল হক বিজয় এদিন নেটে বেশ স্বাচ্ছন্দ্য দেখিয়েছেন। কোচ চন্ডিকা হাথুরুসিংহে অনেকক্ষণ কথা বলেছেন তাঁর সঙ্গে। একাদশে আজ এই বিজয়কে দেখা যাবে কিনা? ক্যামেরার সামনে এই প্রশ্নের উত্তরে মজাই করেছেন হাথুরু। সে ১৫ জনের একজন হিসেবে অবশ্যই একাদশে থাকার দাবি রাখে। আসলে আজ এই বিজয়কে ওপেনিংয়ে খেলানোর পরিকল্পনা রয়েছে টিম ম্যানেজমেন্টের।