‘বিয়ের আসর থেকে এসআই জাহিদ আমার ছেলেকে তুলে নিয়ে যায়’বিপিএলে ঢাকা প্লাটুনে শহীদ আফ্রিদিমুসলিম ছাড়া অন্যদের নাগরিকত্ব দিতে ফের বিল আনছে বিজেপিহবিগঞ্জে ৫৫ টাকার বেশি পেঁয়াজ বিক্রি করলেই জরিমানা!পেঁয়াজ নিয়ে আশার কথা শোনালেন কৃষিমন্ত্রী
No icon

যেকোনো পরিস্থিতি ঠেকাতে প্রস্তুত নারায়ণগঞ্জ পুলিশ

নারায়ণগঞ্জের পুলিশ সুপার হারুন অর রশীদ বলেছেন, একাত্তরের পরাজিত শক্তিরা ঘাপটি মেরে বসে আছে। সুযোগ পেলেই তারা আবার স্বাধীন বাংলাদেশের ওপর আঘাত করবে এবং দেশকে অস্থিতিশীল করবে। নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ যেকোনো পরিস্থিতি মোকাবিলা করার জন্য প্রস্তুত রয়েছে। গতকাল রোববার দুপুরে জেলা প্রশাসকের সম্মেলনকক্ষে জেলা আইনশৃঙ্খলা কমিটির মাসিক সভায় পুলিশ সুপার এসব কথা বলেন। তিনি আরও বলেন, আমরা মাদকের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করেছি। ভূমিদস্যু, চাঁদাবাজদের গ্রেপ্তার করেছি। আপনারা প্রতিদিন পুলিশ সুপারের কার্যালয়ের নিচতলায় এসে দেখবেন, সাধারণ মানুষ সরাসরি আমার কাছে এসে অভিযোগ করছে। আমি ও আমার সহযোগী অতিরিক্ত পুলিশ সুপাররা তাৎক্ষণিকভাবে অভিযোগগুলো আমলে নিয়ে ব্যবস্থা গ্রহণ করছি। এতে সাধারণ মানুষ তাৎক্ষণিক সেবা পাচ্ছে।

এর আগে শনিবার বিকেলে এক সমাবেশে নারায়ণগঞ্জের সাংসদ শামীম ওসমান পুলিশ প্রশাসনের উদ্দেশে বলেন, নারায়ণগঞ্জে অতি উৎসাহী কিছু পুলিশ অফিসার আছে, তারা সংখ্যায় কম, হয় তারা নিজেরাই শিবির করত, না হয় তাদের বাবা-দাদারা শিবির করত। আইনশৃঙ্খলা কমিটির মাসিক সভা শেষে শামীম ওসমানের বক্তব্য সম্পর্কে সাংবাদিকেরা প্রশ্ন করলে পুলিশ সুপার হারুন অর রশীদ বলেন, নারায়ণগঞ্জ পুলিশে স্বাধীনতাবিরোধী কোনো অপশক্তি রয়েছে বলে জানা নেই। থাকলে তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে। সিদ্ধিরগঞ্জে বাক্প্র তিবন্ধী হত্যার ঘটনায় মামলায় আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মী আসামি হওয়া প্রসঙ্গে তিনি বলেন,ওই মামলার বিষয়ে আমাকে সিটি মেয়র সেলিনা হায়াৎ আইভী, সাংসদ শামীম ওসমান ও লিয়াকত হোসেন খোকা বলেছিলেন। আমি তাঁদের বলেছি, ওই মামলায় নিরপরাধ কাউকে জড়ানো হবে না। মামলাটি থানা থেকে ডিবি পুলিশে হস্তান্তর করা হয়েছে।

জেলা প্রশাসক জসিম উদ্দিনের সভাপতিত্বে আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভায় ৬২ বিজিবি অধিনায়ক মো. আল-আমিন, জেলা সিভিল সার্জন মোহাম্মদ ইমতিয়াজ, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মনিরুল ইসলাম, সরকারি কৌঁসুলি ওয়াজেদ আলী, নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা উপস্থিত ছিলেন।

সভায় পুলিশ সুপার হারুন তাঁর বক্তব্যে নারায়ণগঞ্জ জেলার মন্ত্রী-সাংসদদের ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন, তাঁরা জেলা পুলিশের চলমান মাদকবিরোধী অভিযান, চাঁদাবাজ গ্রেপ্তার, ভূমিদস্যুদের গ্রেপ্তারসহ সব ধরনের কার্যক্রমকে সমর্থন জানিয়েছেন ও সহযোগিতা করছেন।