বিশ্ববাজারে টানা ৬ সপ্তাহ কমলো জ্বালানি তেলের দামওমিক্রন নিয়ন্ত্রণে ২৩ সুপারিশরাজধানীতে মাদকবিরোধী অভিযানে আটক ৭৫প্রতিবেশীর ঘরে অস্ত্র ঢোকালে যুদ্ধ বাধবে: যুক্তরাষ্ট্রকে রাশিয়া৯ হাজার কোটি টাকার প্রকল্পে ঢেলে সাজানো হচ্ছে ঢাবি
No icon

বিশ্বকাপে পাকিস্তানের টানা দ্বিতীয় জয়

ভারতের পর এবার নিউজিল্যান্ডকেও হারাল আত্মবিশ্বাসী পাকিস্তান। নিউজিল্যান্ডকে ৮ বল হাতে রেখে ৫ উইকেটে হারিয়ে সুপার টুয়েলভে টানা দুই জয় তুলে নিল পাকিস্তান। নিউজিল্যান্ডের করা ১৩৪ রানের জবাব দিতে নেমে দেখেশুনেই শুরু করে পাকিস্তানি দুই ওপেনার মোহাম্মদ রিজওয়ান এবং বাবর আজম। উদ্বোধনী জুটিতে আসে ২৮ রান। আগের ম্যাচে ভারতের বিপক্ষে দারুণ ব্যাটিং করা অধিনায়ক বাবর আজম অবশ্য এই ম্যাচে খুব একটা ভালো করতে পারেননি। মাত্র ৯ রান করেই বিদায় নেন তিনি। টিম সাউদির বলে বোল্ড হয়ে ফিরে যান বাবর। তবে অন্য প্রান্তে রিজওয়ান ছিলেন কিছুটা সাবলীল। তার ব্যাট থেকে আসে ৩৩ রান। রিজওয়ান ফেরার পর ফখর জামান এবং মোহাম্মদ হাফিজ খুব একটা সুবিধা করতে পারেননি। ১১ রান করে সোধির বলে আউট হন ফখর জামান। হাফিজও ফিরে যান ১১ রান করে। ৮৭ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে কিছুটা ছন্দপতন ঘটে পাকিস্তানের।

তবে অভিজ্ঞ শোয়েব মালিক এবং আসিফ আলী এই বিপর্যয় সামাল দেন। দুজন মিলে জুটি গড়ে দলকে টেনে নিয়ে যান। এই দুজনের দায়িত্বশীল ব্যাটিংয়ে জয়ের বন্দরে পৌঁছায় পাকিস্তান। শোয়েব মালিক করেন ২০ বলে ২৭ রান। আর আসিফ খেলেন ১২ বলে ২৭ রানের ক্যামিও ইনিংস।

নিউজিল্যান্ডের হয়ে ইশ সোধি নেন ২টি উইকেট। এছাড়া টিম সাউদি, ট্রেন্ট বোল্ট নেন ১টি করে উইকেট।

এর আগে গ্রুপ টুতে সুপার টুয়েলভের ম্যাচে পাকিস্তানকে ১৩৫ রানের টার্গেট দেয় নিউজিল্যান্ড। টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৮ উইকেটে ১৩৪ রান সংগ্রহ করে নিউজিল্যান্ড। সাবধানী শুরু করেন দুই কিউই ওপেনার মার্টিন গাপটিল ও ড্যারেল মিচেল। তবে ১৭ রান করা গাপটিলকে ফিরিয়ে পাকিস্তানের হয়ে প্রথম ব্রেক থ্রু এনে দেন হ্যারিস রউফ। এরপর অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন মিচেলকে সঙ্গে নিয়ে বড় জুটি গড়ার চেষ্টা করেন। কিন্তু ইমাদ ওয়াসিমের বলে ফিরে যান মিচেল। তার ব্যাট থেকে আসে ২৭ রান। এরপর উইলিয়ামসনও বেশিদূর এগোতে পারেননি। রান আউটে কাটা পড়ে ফিরে যান ২৫ রান করে। থিতু হতে পারেননি জেমস নিশামও। ব্যক্তিগত ১ রান করে বিদায় নেন তিনি।

১০০ রানের আগেই ৪ উইকেট হারিয়ে ফেলা কিউইদের এগিয়ে নিতে ক্রিজে জুটি গড়েন গ্লেন ফিলিপস ও ডেভন কনওয়ে এই জুটি ভাঙেন হ্যারিস রউফ। ভালোই খেলতে থাকা কনওয়েকে ফেরান ২৭ রানে। একই ওভারে রউফ ফিরিয়ে দেন ফিলিপসকেও। ফিলিপসের ব্যাট থেকে আসে ১৩ রান।

এবারের আসর দারুণ জয় দিয়ে শুরু করেছে পাকিস্তান। আগের ম্যাচে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারতকে ১০ উইকেটের বড় ব্যবধানে হারিয়ে আত্মবিশ্বাসের তুঙ্গে বাবর আজম বাহিনী। সেই ম্যাচে দারুণ ব্যাটিং উপহার দিয়ে হাফ সেঞ্চুরি তুলে নেন দুই ওপেনার রিজওয়ান ও বাবর আজম।