দেশে করোনায় একদিনে সর্বোচ্চ ৭৮ জনের মৃত্যুআন্তর্জাতিক ফ্লাইট বন্ধ মঙ্গলবার রাত থেকে'লকডাউন' সোম-মঙ্গলবারও কার্যকর১৪ এপ্রিল থেকে সাধারণ ছুটির ঘোষণা আসতে পারেরাজধানীতে সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ দুই এলাকা
No icon

রোহিঙ্গা ফেরাতে চেষ্টা অব্যাহত আছে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন বলেছেন, রোহিঙ্গা ফেরাতে সরকারের পররাষ্ট্রনীতি এখনও চালকের আসনে আছে। রোহিঙ্গাদের তাদের দেশে ফিরিয়ে দিতে আমাদের চেষ্টা অব্যাহত আছে। প্রতিবেশী রাষ্ট্র ভারত, চীন, থাইল্যান্ডসহ আরও অনেক দেশ স্বীকার করেছে যে মিয়ানমার রোহিঙ্গা সমস্যার সৃষ্টি করেছে। সবাই একই সুরে বলেছে, এর স্থায়ী সমাধান হলো লোকগুলোকে ফিরিয়ে নেওয়া।রোববার চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের বঙ্গবন্ধু মিলনায়তনে মেজর (অব.) মোহাম্মদ এমদাদুল ইসলামের দুটি বইয়ের প্রকাশনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক শিরীণ আখতারের সভাপতিত্বে এতে বিশেষ অতিথি ছিলেন শিক্ষা উপমন্ত্রী ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল।

আব্দুল মোমেন আরও বলেন, সিরিয়া, ইয়েমেন ও ইরাকের ১০ লাখ বাস্তুহারা মানুষকে ইউরোপের ২৭টি দেশে জায়গা দিতে গিয়ে হিমশিম খেতে হয়েছে। আর এখানে মানবিক কারণে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ১১ লাখ মানুষকে আশ্রয় দিয়েছেন। রোহিঙ্গারা যখন প্রথমদিকে দেশে আসে, তখন কেউ আমাদের সাহায্য করেনি। এখানকার লোকজনই রোহিঙ্গাদের ঠাঁই দিয়েছে, খাবার দিয়ে সাহায্য করেছে।তিনি বলেন, ১৯৯২ সালে প্রায় দুই লাখ ৫৩ হাজার রোহিঙ্গা বাংলাদেশে এলেও পরবর্তী সময়ে আলোচনার মাধ্যমে তারা দুই লাখ ৩০ হাজার ফেরত নিয়ে যায়। তাই ১১ লাখ রোহিঙ্গাকেও ফেরত নিয়ে যাবে বলে আমরা আশাবাদী। কিন্তু কখন নিয়ে যাবে, তা বলা মুশকিল। তবে তাদের ফেরাতে সব ধরনের পদক্ষেপ বাংলাদেশ সরকার নিয়েছে। এ জন্য মিয়ানমারের সঙ্গে আমরা সার্বক্ষণিক আলোচনা চালিয়ে যাচ্ছি।