‘প্রতারক’ সাহেদ-সাবরিনার ব্যাংক হিসাব জব্দমনোনয়ন ‘ম্যানেজ’ করে সাহেদ এমপি হতে চেয়েছিলেনকরোনায় চট্টগ্রামের উপ পুলিশ কমিশনার মিজানের মৃত্যুকরোনা ভ্যাকসিনের প্রথম সফল পরীক্ষা রাশিয়ায়!চীনে ভয়াবহ বন্যা, ১৪১ জনের বেশি প্রাণহানির শঙ্কা
No icon

পাবনায় গৃহকর্মীকে বাড়ির ছাদ থেকে ফেলে হত্যা

মোবাইল চুরির অপরাধে পাবনায় মালেকা খাতুন (৩০) নামের এক গৃহকর্মীকে ছাদ থেকে ফেলে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। মঙ্গলবার বিকাল ৪টার দিকে পাবনা কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনাল রেলগেট সংলগ্ন মহেন্দ্রপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় নিহত গৃহকর্মীর বড় ভাই আজিজুল মির্জা বাদী হয়ে বাড়ির মালিক আ. আলীমের বিরুদ্ধে বুধবার পাবনা সদর থানাতে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। নিহত গৃহকর্মী মালেকা পাবনা সদর উপজেলার আতাইকুলা থানার লোহাগাড়া চোমরপুরে গ্রামের মোহাম্মদ মৃধার মেয়ে এবং একই এলাকার জয়নালের স্ত্রী। স্থানীয়রা জানায়, নিহত গৃহকর্মী মহেন্দ্রপুর গ্রামের আবদুল আলীমের বাড়িতে কাজ করত। মঙ্গলবার মোবাইল ফোন চুরির অভিযোগে আলীমের স্ত্রী লাকি খাতুন গৃহকর্মী মালেকাকে বেদম মারপিট ও গরম খুন্তি দিয়ে ছ্যাঁকা দিয়ে নির্যাতন চালান। এতে মালেকা অসুস্থ হয়ে জ্ঞান হারিয়ে ফেলে। মালেকা মারা গেছে ভেবে ঐ বাড়ির মালিক আলীমের নেতৃত্বে তার বাড়ির লোকজন মালেকাকে চারতলা ভবনের ছাদে নিয়ে নিচে ফেলে দেয়। এতে মালেকা ঘটনাস্থলেই প্রাণ হারান।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কয়েকজন জানান, আহত মালেকাকে হাসপাতালে পাঠানোর নাম করে আলীম ও তার লোকজন দ্রুত অটোরিকশায় করে তাকে ঘটনাস্থল থেকে সরিয়ে ফেলে। এরপর পুলিশকে না জানিয়েই মালেকার লাশ তার নিজ গ্রামের বাড়ি চোমরপুরে পাঠিয়ে ঘটনা ধামাচাপা দেয়ার চেষ্টা করা হয়।

পাবনা সদর থানার ওসি নাসিম আহম্মেদ বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ মঙ্গলবার রাতে ঘটনাস্থলে যায়। প্রাথমিকভাবে ঘটনার সঙ্গে সম্পৃক্ত থাকার অভিযোগে বাড়ির মালিক আলীমের স্ত্রীকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক এবং নিহত গৃহকর্মীর লাশ চোমরপুর গ্রাম থেকে উদ্ধার করে।

ওসি আরও জানান, মেয়েটির গায়ে তেমন কোনো ক্ষতের চিহ্ন নেই, তবে হাতে একটু দাগ আছে এবং নাক দিয়ে রক্ত ঝরছিল। বুধবার সকালে লাশ ময়নাতদন্তের জন্য পাবনা জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়। ময়নাতদন্ত রিপোর্ট পাওয়ার পর পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে। ঘটনার পর থেকে বাড়ির মালিক লাকির স্বামী আ. আলীম পলাতক রয়েছেন।

পাবনা সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ইবনে মিজান ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে জানান, ঘটনার তদন্ত করা হচ্ছে এবং বাড়ির মালিক আলীমকে গ্রেফতারের জন্য অভিযান অব্যাহত রয়েছে।