পুঁজিবাজারে আসছে প্রণোদনার ৮৫ কোটি টাকাডেঙ্গুর ভয়াবহতায় আতঙ্কে খোদ চিকিৎসকরাওপ্রিয়া সাহা কখনও আমার গবেষণা সহযোগী ছিলেন না: ড. বারাকাতখাবার নেই, সাড়ে ৯ লাখ বানভাসির হাহাকারহিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদ থেকে প্রিয়া সাহা বরখাস্ত
No icon

দুর্ঘটনার নতুন আইন বাতিলের দাবিতে শ্রমিক আন্দোলন

দুর্ঘটনায় সাজা বাড়িয়ে করা নতুন আইন বাতিলের দাবিতে ঢাকা-উত্তরবঙ্গ মহাসড়কের উত্তরা ১০নং সেক্টরের কামাড়পারায় সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেছে পরিবহন শ্রমিকরা। এ সময় মহাসড়ক অবরোধ করলে রোডের দুই ধারে তীব্র যানজটে ভোগান্তির শিকার হন চলাচলকারীরা। রোববার সকাল ১০টা থেকে এ আন্দোলন শুরু হয়। চলে সকাল সোয়া ১১টা পর্যন্ত। এ সময় বিক্ষুব্ধ শ্রমিকরা শতাধিক কাভারভ্যান আটক করে সড়কের পাশে পার্কিং করে রাখে। আন্দোলনকারী শ্রমিক নেতা আলাউদ্দিন জানান, শাস্তি মওকুফ, সরকার ও পুলিশের নিত্যনতুন নিয়ম বন্ধসহ বিভিন্ন দাবিতে তারা অনির্দিষ্টকালের জন্য আন্দোলন চালিয়ে যাবেন। তিনি বলেন, ধর্মঘট ডাকার পরও যেসব কাভারভ্যান সড়কে চলাচল করছে তা আটক করে মালিকদের জানানো হচ্ছে।

ঘটনাস্থলে উত্তরা জোনের এসি কামরুজ্জামান, পশ্চিম থানার ওসি আলী হোসেন খান, কামাড়পাড়া ট্রাফিক পুলিশের টিআই মুজিবুর রহমান এবং স্থানীয় প্রশাসনের একাধিক টিম মহাসড়কে চলাচল সাভাবিক করতে কাজ করেন।

এদিকে এ ঘটনায় কামাড়পাড়া থেকে আশুলিয়া এবং আব্দুল্লাহপুর পর্যন্ত দুপাশে তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়।

কামাড়পাড়া ট্রাফিক পুলিশের টিআই মুজিবুর রহমান  জানান, খবর পেয়ে সার্জেন্ট এবং ট্রাফিকের টিম নিয়ে ঘটনাস্থলে আসেন। এবং যানবাহন চলাচল স্বাভাবিক করতে কাজ করেন।

উত্তরা জোনের সিনিয়র সহকারী পুলিশ কমিশনার কামরুজ্জামান  জানান, সড়ক অবরোধ হওয়ার খবর পেয়ে রাস্তায় গাড়ি এবং জনগণের নিরাপত্তার জন্য ঢাকা-আশুলিয়া মহাসড়কের গাড়ি চলাচল স্বাভাবিক করতে আন্দোলনকারীদের মহাসড়ক থেকে সরিয়ে দেয়া হয়। ফলে আবার যানবাহন চলাচল স্বাভাবিক হয়।